রবিবার, ১৭ জানুয়ারী ২০২১, ০১:১৮ পূর্বাহ্ন

ডিএমপি’র ডেঙ্গু বিস্তার প্রতিরোধে পরিচ্ছন্নতা অভিযান

ডিএমপি’র ডেঙ্গু বিস্তার প্রতিরোধে পরিচ্ছন্নতা অভিযান

আজ ৩ আগস্ট, ২০১৯ শনিবার ডেঙ্গু প্রতিরোধী পরিস্কার পরিচ্ছন্নতা অভিযান নিয়ে রাজারবাগ পুলিশ লাইনে সাংবাদিকদের সাথে ব্রিফকালে এ কথা বলেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার মোঃ আছাদুজ্জামান মিয়া বিপিএম (বার), পিপিএম।

এ সময় তিনি বলেন, আজ ৩ আগস্ট সকাল ৭টা থেকে সকাল ১০ টা পর্যন্ত আমরা ডেঙ্গু প্রতিরোধের জন্য ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের সকল পুলিশ লাইনস্, অফিস যেমন- ডিসি অফিস, থানা, ফাঁড়ি, কন্ট্রোলরুম, মেস ও ডাইনিং ইত্যাদি স্থানে পরিস্কার পরিচ্ছন্নতা অভিযান করছি। এ অভিযানে ডিএমপি’র বিভিন্ন পর্যায়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রমে অংশগ্রহণ করেন।

তিনি বলেন, আমরা জানি ডেঙ্গু ছড়িয়ে পড়েছে এডিস মশার কারণে। এই এডিস মশা ড্রেনে, স্বচ্ছ ও বদ্ধ পানিতে, পুকুরের আবর্জনা, ফলের খোসা ও ফুলের টবে জমে থাকা পানিতে বংশ বিস্তার করে। আমরা এডিস মশা নিধনের ঔষধ   ও ফগার মেশিন কিনেছি। ফগার মেশিনের মাধ্যমে আমরা ঔষধ ছিটিয়ে এডিস মশার লার্ভাকে ধ্বংস করব। আর যদি এডিস মশার লার্ভাকে  ২৪ ঘন্টার মধ্যে ধ্বংস করতে পারি তাহলে আমাদের আর ডেঙ্গু ছড়াবে না। ইতোমধ্যে আমরা পুরাতন গাড়ি বিভিন্ন সরঞ্জামাদি গাড়ির টায়ার টিউব যেখানে রয়েছে তা পরিস্কার করা হচ্ছে, যাতে পানি জমা না হয় সে উদ্যোগ আমরা নিয়েছি।

কমিশনার বলেন, শুধু সরকার বা স্বাস্থ্য বিভাগ এই ডেঙ্গু প্রতিরোধ করতে পারবে না। এই ডেঙ্গু প্রতিরোধে নগরবাসী ও জনগণকে এগিয়ে আসতে হবে। যার যার আঙিনা তাকে তাকে পরিস্কার করতে হবে। এটা আমাদের নাগরিক দায়িত্ব। ডেঙ্গু শুধু আমাদের দেশেই নয়, অন্যান্য দেশেও ছড়িয়ে পড়েছে।

তিনি বলেন, পবিত্র ঈদুল আযহা উপলক্ষে প্রায় ৬০-৭০ লক্ষ মানুষ গ্রামে যাবে। এখনই যদি ঢাকার এডিস মশা নিধন করতে না পারি তাহলে ডেঙ্গু গ্রামেগঞ্জে ছড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনা আছে। আমরা শুধু  ডিএমপি’র ইউনিটগুলো পরিস্কার করছি না, ডিএমপি’র বিভিন্ন থানার ৩০২ বিটের  পাড়া মহল্লায় সচেতনতা কর্মসূচি গ্রহণের জন্য আমরা সংশ্লিষ্ট বিট কর্মকর্তা, অফিসার ইনচার্জ ও ডিসিদের নির্দেশ দিয়েছি। এছাড়াও সিটি কাউন্সিলর ও কমিউনিটি পুলিশ সাথে নিয়ে মহল্লাবাসীদের  একত্রিত করে সবাইকে সচেতন করে যার যার এলাকায় স্বচ্ছ পানি জমা রয়েছে যেখানে এডিস মশার প্রজনন হতে পারে সেসব এলাকা পরিস্কার করে ঔষধ ছিটানোর জন্য বলা হয়েছে।   আমরা যদি  পুরো শহরকে এভাবে পরিস্কার পরিচ্ছন্ন করি তাহলে ডেঙ্গু প্রতিরোধ করা আমাদের জন্য সহজ হবে।

 

তিনি আরো বলেন, ঢাকা শহরে প্রায় ৫০ হাজার পুলিশ সদস্য রয়েছে, তাদেরকে বলা হয়েছে তারা সবাই যেন জাতির এই  ‍দুর্দিনে সবার মাঝে ছড়িয়ে পড়ে সচেতনতা বৃদ্ধি করতে সহায়তা করে। তিনি ডেঙ্গু প্রতিরোধে মহানগরবাসীকে এগিয়ে আসার আহ্বান করেন।

উল্লেখ্য গত ১ লা আগস্ট ২০১৯ তারিখ ডিএমপি কমিশনার সকল ইউনিটের সদস্যদেরকে আজ সকাল ৭টা হতে ১০টা পর্যন্ত তাদের স্ব স্ব অফিস ও তার আশপাশ এলাকায় পরিস্কার পরিচ্ছন্নতা অভিযান পরিচালনায় নির্দেশনা দেন।

Please Share This Post in Your Social Media




© All rights reserved © 2017 Asiansangbad.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com