বুধবার, ২১ Jul ২০২১, ১১:৫৩ পূর্বাহ্ন

প্রিয়া সাহার আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দেবে সরকার: ওবায়দুল কাদের

প্রিয়া সাহার আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দেবে সরকার: ওবায়দুল কাদের

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের কাছে বাংলাদেশে ধর্মীয় সংখ্যালঘুদের উপর নির্যাতনের অভিযোগ করা প্রিয়া সাহার আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দেবে সরকার এবং এর আগে কোন আইনী প্রক্রিয়া শুরু না করতে প্রধানমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছেন বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তিনি আজ রোববার বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ঢাকা মেট্রোরেল নেটওয়ার্কের সময়বদ্ধ পরিকল্পনার ব্রান্ডিং বিষয়ক সেমিনার শেষে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন।
প্রিয়া সাহার বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নে ওবায়দুল কাদের বলেন, এ বক্তব্য বিরুপ প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি করেছে, ভেরি সেনসেটিভ ইস্যু, দেশের বাইরে গিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্টের কাছে এ ধরণের বক্তব্য কেন দিয়েছেন, সেটা দেশে ফিরে এলে আমার মনে হয় তারও আত্মপক্ষ সমের্থনের সুযোগ থাকা উচিত।
এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী বার্তা দিয়েছেন জানিয়ে কাদের বলেন,“প্রধানমন্ত্রী আমাদের লিডার, গতরাতে আমাকে মেসেস পাঠিয়েছেন, সেটা হচ্ছে এখানে তড়িঘরি করে সিদ্ধান্ত নেওয়ার কোন প্রয়োজন নেই। প্রিয়া সাহা যা বলেছেন শি শুড মেইক এ পাবলিক স্টেটমেন্ট। তিনি আসলে কি বলেছেন, কি বলতে চেয়েছেন তার একটি পাবলিক স্টেটমেন্ট করা উচিত, তারও আত্মপক্ষ সমর্থনের একটা সুযোগ থাকা উচিত। তার আগে কোন প্রকার মামলা বা আইনী প্রক্রিয়া শুরু না করতে প্রধানমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছেন। এ বিষয়ে কোন প্রকার আইন প্রক্রিয়ায় যেতে মানা করা হচ্ছে জানিয়ে কাদের বলেন, মুক্তিযুদ্ধ মন্ত্রীর আজ একটা মামলা করার কথা ছিল, তাকে আমি জানিয়েছি এ ধরণের মামলার প্রসিডিং শুরু না করতে এবং আইনমন্ত্রীর সাথেও এ ব্যাপারে কথা হয়েছে। এছাড়া প্রিয়া সাহার ব্যক্তিগত বাড়িঘর সম্পদ সেখানে যাতে প্রটেকিটিভ মেজার থাকে, যথার্থ নিরাপত্তা থাকে স্টেপ নিতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে প্রধানমন্ত্রীর মেসেজ জানিয়ে দিয়েছি।
সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার সায়্যেদুল হক সুমন এবং ঢাকা আইনজীবী সমিতির কার্যকরী পরিষদের সদস্য ইব্রাহিম খলিল রোববার সকালে ঢাকার হাকিম আদালতে ইতিমধ্যে দুটি মামলা দায়ের করেছেন।
মামলা অগ্রাহ্য করা হয়েছে জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন,“আইনমন্ত্রী বলেছে এ মামলা অগ্রাহ্য করা হয়েছে। সরকারের অনুমিত ছাড়া রাষ্ট্রদ্রোহী মামলাতো করাও যায় না। যে অভিযোগটা করেছেন সে অভিযোগের বিষয়ে তার বক্তব্যটাও জানা দরকার। জাতির জানা দরকার তার আগে কোন প্রকাশ স্টেপ আমরা নেব না।
রোববার সকালে মার্কিন রাষ্ট্রদূতের সাথে বৈঠকের বিষয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন,“মার্কিন রাষ্ট্রদূত আমার বক্তব্য শুনেছেন এবং প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য আমি তাকে বলেছি, হি ইজ ভ্যারি হ্যাপি আমার মনে হয় , হি ইজ ভ্যারি স্যাটিসফাইড, আমাদের ভাবনা সাথে পজিটিভলি রেসপন্স করেছে দেখেছি।
বর্তমান প্রেক্ষাপটে প্রিয়া সাহা দেশে আসবে বলে কি আপনার মনে হয়, সাংবাদিকদের প্রশ্নে কাদের বলেন,“সে তার দেশে আসবে না কেন। এখানে হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের রানা দাস গুপ্তের সাথে কথা হয়েছে, এই বক্তব্য তার ব্যক্তিগত কমেন্ট, এর সাথে পরিষদের কোন সম্পর্ক নেই।
তিনি বলেন, “দেশের আসার অধিকার তার আছে, দেশে আসার পথে কোন প্রতিবন্ধকতা সুষ্টি করছি না বা কোন লিগ্যাল প্রসিডিউরও শুরু করছি না।
দেশে আনার জন্য সরকারের পক্ষ থেকে কোন উদ্যেগ নেওয়া হবে কিনা জানতে চাইলে কাদের বলেন,“আমার মনে হয় তিনি স্বতস্ফূর্তভাবে এখানো দেশে আসতে পারেন, সেখানে সরকারের পক্ষ থেকে ব্যবস্থা নেয়ার বা বাধা দেওয়ার কোন প্রয়োজন নেই।
ট্রাম্পের সাথে সরাসরি কথা বলা সহজ বিষয় নয়, এর পেছনে কোন মদত আছে কিনা জানতে চাইলে কাদের বলেন, এটি উদ্দেশ্য প্রণোদিত, উস্কানীমূলক এবং অসত্য কাল্পনিক বক্তব্য। তিনি কেন দিলেন আমরা তার কাছে জানতে চাইবো, তিনি দেশে ফিরে আসুক তার কাছে জানতে চাইবো উদ্দেশ্য কি মোটিভ টা কি।এটা তো তার থেকে আমাদের পাবলিক স্টেটমেন্টটা জানা উচিত, আসার পরই কোন স্টেপ নেয়ার বিষয়ে ভাবা যাবে।
এর পেছনে কারা রয়েছে এ বিষয়ে সরকারের কাছে কোন তথ্য আছে কিনা জানতে চাইলে কাদের বলেন,  এ মুহূর্তে আমরা এখনো সব কিছু পরিষ্কার না। গোটা বিষয়টা পরিষ্কার হওয়া উচিত। (বাসস)

Please Share This Post in Your Social Media




© All rights reserved © 2017 Asiansangbad.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com