August 14, 2019, 9:55 pm

উপঢৌকন নিয়ে ফাটল ধরা ব্রিজের ২৪ লাখ টাকার বিল দিলেন পিআইও

উপঢৌকন নিয়ে ফাটল ধরা ব্রিজের ২৪ লাখ টাকার বিল দিলেন পিআইও

অ আ আবীর আকাশ,লক্ষ্মীপুর:
লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জ উপজেলায় ঠিকাদারের কাছ থেকে উপঢৌকন নিয়ে ওয়াপদা খালের ওপর নির্মিত ফাটল ধরা ব্রিজের চূড়ান্ত বিল দিয়েছেন প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা (পিআইও)।
গতকাল ঠিকাদার ২৪ লাখ ৩০ হাজার ২২৯ টাকার বিল পেয়েছেন। এদিকে কাজটি বুঝে নেয়ার জন্য ইউএনও নির্দেশ দিলেও তা অমান্য করেছেন পিআইও। তবে পিআইও বলছেন, তিনি যা করেছেন ইউএনওর নির্দেশে করেছেন।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ত্রাণ ও দুর্যোগ মন্ত্রণালয়ের বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচির আওতায় স্থানীয় লামচর ইউনিয়নের দাসপাড়া ওয়াপদা খালের ওপর ১৫ মিটার দৈর্ঘ্যের ব্রীজ নির্মাণে ৩২ লাখ টাকা বরাদ্দ দেয়া হয়। গত মার্চ মাসে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান জাফলং টেন্ডার পেয়ে ব্রীজটির নির্মাণকাজ শুরু করে। শুরু থেকে রড ও সিমেন্ট কম দেয়াসহ সরকারি কাজে তদারকির অভাব ও মানহীন কাজের অভিযোগ তুলেছেন স্থানীয়রা।
এছাড়া অনিয়মতান্ত্রিকভাবে ব্রিজের পূর্বপাশে ভ্যাকো মেশিনে উইং ওয়ালের নিচ থেকে মাটি ভরাট করে প্রতিষ্ঠানটি। এতে করে কাজ শেষ হতে না হতেই ব্রীজটির একাধিক স্থানে ফাটল দেখা দেয়। ফলে বিক্ষুব্ধ হয়ে উঠেন এলাকাবাসী। তোপের মুখে পড়ে কাজ বন্ধ রাখে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানটি।
এ বিষয়ে দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মো. মোশারেফ হোসেন বলেন, ফাটল ব্রীজ পরিদর্শন করেছি। ঠিকাদার কাজটি নিয়মতান্ত্রিকভাবে করে দেয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। ইউএনওর নির্দেশে ঠিকাদারকে বিল দেয়া হয়েছে।
তবে রামগঞ্জের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. রিজাউল করিম বলেন, পিআইওকে বিল না দেয়ার জন্য নির্দেশ দেয়া হয়েছে। পরে এ বিষয়ে আর কোনো কথা হয়নি।
ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান জাফলংয়ের মালিক মো. সেলিম বলেন, ভ্যাকো মেশিনে মাটি ভরাট করতে গেলে ব্রীজটিতে ফাটল দেখা দেয়। খাল হলো ১০০ ফুট, ব্রিজ হলো ৪০ ফুট এতে করে পানির প্রবাহে কাজ করতে বিড়ম্বনার শিকার হয়েছি। তবে টাকা উত্তোলন

Please Share This Post in Your Social Media




© All rights reserved © 2017 Asiansangbad.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com