May 26, 2019, 5:50 pm

সংবাদ শিরোনাম :
ভারতের রাষ্ট্রপতি প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নরেন্দ্র মোদিকে নিয়োগ দিয়েছেন। বিএনপি’র গণমুখী রাজনীতিতে কোন চরিত্র নেই:মোহাম্মদ নাসিম খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থা নিয়ে অপরাজনীতি করবেন না : তথ্যমন্ত্রী ধানমন্ত্রীর টোকিও সফরকালে বাংলাদেশ-জাপানের মধ্যে ওডিএ স্বাক্ষরিত হবে : মোমেন গাজীপুর হতে মানব পাচারকারী চক্রের অন্যতম সদস্য গ্রেফতার। রুহিয়া থানা অনলাইন প্রেস ক্লাবের ইফতার মাহফিল  গাইবান্ধায় গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার আনন ফাউন্ডেশন আয়োজিত শিশুসাহিত্য আসর ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে যাতায়াত নির্বিঘ্ন করতে প্রস্তুত ২০ ফেরি ও ২২ লঞ্চ। মুখ থুবড়ে পড়বে কি প্রতিবন্ধী ফারুকের শিক্ষা স্বপ্ন
বাংলাদেশ ও জিম্বাবুয়ে ২১শে অক্টোবর থেকে সিরিজ খেলবে।

বাংলাদেশ ও জিম্বাবুয়ে ২১শে অক্টোবর থেকে সিরিজ খেলবে।

বাংলাদেশ ও জিম্বাবুয়ে ২১শে অক্টোবর থেকে একটি সিরিজ খেলবে। যেখানে তিনটি ওয়ানডে ও দুটি টেস্ট ম্যাচ খেলবে দলটি।

বাংলাদেশের ক্রিকেট দলের বেশ কয়েকজন ক্রিকেটার ইনজুরিতে ভুগছেন। যাদের মধ্যে সাকিব আল হাসান ও তামিম ইকবালের মতো বড় ক্রিকেটারের নাম রয়েছে।

এশিয়া কাপের পর শোনা যাচ্ছিলো যে অনেকটা আনকোরা একটি দল দেয়া হতে পারে এবারের সিরিজে।

তবে প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন নান্নু বলছেন, এখানেসবকিছু মিলিয়ে সেরা দলটি নামানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। কারণ র‍্যাঙ্কিংয়ের ব্যাপার থাকে।

সেক্ষেত্রে ফর্মে থাকা ক্রিকেটারদের রাখা হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

লিটন দাস চারদিনের একটি ক্রিকেট ম্যাচে ১৪২ বলে ২০৩ রানের একটি ইনিংস খেলেছেন।

মারকুটে এই ইনিংসে ৩২ টি চার ও ৪ টি ছক্কা হাকিয়েচেন তিনি। রাজশাহীতে রংপুর ও রাজশাহীর মধ্যকার ম্যাচে রংপুরের হয়ে এই ইনিংস খেলেন লিটন।

 শক্তিশালী দল গঠন করা সম্ভব?

“যেহেতু দুজন খেলোয়াড় এখন পুরোপুরি ইনজুরিতে আছেন, সে হিসেবে দল সাজানো হচ্ছে, তবে টেস্ট খেলুড়ে দল হিসেবে আমাদের এখন খেলোয়াড় আছে, ঘরোয়া ক্রিকেট থেকে ভালো ক্রিকেটারদেরই নেয়া হবে,” বলছিলেন মি: নান্নু।

তবে কিছু নতুন খেলোয়াড় নেয়ার কথাও বলেছেন প্রধান নির্বাচক।

মিনহাজুল আবেদীন নান্নু বলেন, “চূড়ান্ত ঘোষণা না আসা পর্যন্ত নাম বলা যাবে না, তবে কিছু তো নতুন মুখ থাকবেই, তিনটি ম্যাচ রয়েছে, তিনটি ম্যাচই গুরুত্বপূর্ণ।”

সেক্ষেত্রে মিজানুর রহমান ও শাদমান ইসলামের মতো নামগুলো আসতে পারে স্কোয়াডে।

দল ঘোষণার বিষয়ে আরো কিছু বিষয় মাথায় রাখছে নির্বাচক প্যানেল।

মি: নান্নু বলেন, যেহেতু প্রথম শ্রেনির খেলা চলছে, এজন্য একটু আগেভাগে স্কোয়াড দেয়া হবে। কারণ জাতীয় লিগের অন্যান্য দলগুলোতে প্রভাব না পড়ে। সেক্ষেত্রে ওয়ানডে দলের জন্য ১৩ জনকে রেখে দুজনকে ছেড়ে দেয়া হতে পারে।

এশিয়া কাপের দল থেকে বেশ কিছু পরিবর্তন হওয়ার কথা বলেছেন মিনহাজুল আবেদীন নান্নু।

তবে সেটা প্রথম শ্রেনির ক্রিকেট থেকে পর্যবেক্ষণ করা হবে না বলে জানিয়েছেন মি: নান্নু। তিনি বলেন, “ফোর ডে ম্যাচের সাথে ওয়ানডের পার্থক্য রয়েছে, তাই এখানে ভালো পারফর্ম করলেই যে নেয়া হবে ব্যাপারটা এমন নয়।”

Please Share This Post in Your Social Media




© All rights reserved © 2017 Asiansangbad.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com