শিরোনাম :
রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশের ভূমিকায় পূর্ণ সংহতি প্রকাশ নেতাদের উন্নয়ন পেতে হলে নৌকায় ভোট দিয়ে শেখ হাসিনাকে আবারো ক্ষমতায় আনতে হবে: শিল্পমন্ত্রী ইংল্যান্ড জাতীয় ক্রিকেট দলের নতুন নির্বাচক হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন এড স্মিথ। জাপান উ. কোরিয়ার প্রতিশ্রুতিতে সন্তুষ্ট নয় দেশে ফিরেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী মোদি অর্থবছরের প্রথম ৮ মাসে যুক্তরাষ্ট্রে রফতানিতে ১.৬২ শতাংশ প্রবৃদ্ধি ঝালকাঠিতে কৃষকের মধ্যে সার ও বীজ বিতরণ ইয়াবাসহ যাত্রাবাড়ীতে ২ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার নিয়োগ পরীক্ষায় ইলেকট্রনিক ডিভাইস ব্যবহার গ্রেফতার ৫ রানী দ্বিতীয় এলিজাবেথের সাথে প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা বিনিময়

কোন ইস্যু নেই বলেই দেশের স্থিতিশীল অবস্থাকে বিএনপি মেনে নিতে পারছে না। : ওবায়দুল কাদের

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, আন্দোলন করার মত কোন ইস্যু নেই বলেই দেশের স্থিতিশীল অবস্থাকে বিএনপি মেনে নিতে পারছে না।
আজ রোববার সকালে ধানমন্ডিস্থ আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ধানমন্ডিস্থ রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলের ধর্ম বিষয়ক উপকমিটির সভায় তিনি এ কথা বলেন।
ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘কোটা সংস্কার নিয়ে তাদের আন্দোলন গড়ে তোলার রঙ্গিন খোয়াব সেটা কর্পূরের মতো বাতাসে মিশে গেছে। তাদের হাতে আন্দোলনের কোন ইস্যু নেই। যে কারণে তারা হতাশার সাগরে ডুবে গিয়ে আবোল, তাবোল কথা বলছেন।’
আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘দেশে বর্তমানে শান্তি আছে, স্থিতিশীলতা আছে। এটা বিএনপি সইতে পারছে না। তাই পহেলা বৈশাখের স্বতঃস্ফূর্ত, কালারফুল উদযাপনও তাদের ভাল লাগেনি।’
তিনি বলেন, কোটা সংস্কার আন্দোলন নিয়ে বিএনপি যে আন্দোলন গড়ে তুলতে চেয়েছিল তা ধুলায় মিশে গেছে। বিএনপির অন্ধ রাজনীতি পহেলা বৈশাখের উৎসবকেও কাজে লাগিয়েছে। এটি হচ্ছে বিএনপির কুরুচিপূর্ণ রাজনীতি, নষ্ট রাজনীতি।
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, কোটা সংস্কার আন্দোলনকে কেন্দ্র করে বিএনপি যে নতুন খোয়াব দেখেছিল তা প্রধানমন্ত্রীর ভাষণের মধ্য দিয়ে করপুরের মতো উড়ে গেছে, হারিয়ে গেছে। তাদের আর কোনো নতুন ইস্যু নেই। তাদের মাঠে নামার কোনো অবস্থাও নেই।
বৈশাখেও বিএনপি নোংরা রাজনীতিকে কাজে লাগিয়েছে অভিযোগ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, পহেলা বৈশাখে সেলিব্রেশন, কালারফুল লাখ লাখ, কোটি কোটি নর-নারীর উপস্থিতি এবং গ্রাম পর্যায়ে পহেলা বৈশাখ উদযাপন হয়েছে। এ দিনে দেশের প্রধানমন্ত্রী বক্তব্য রেখেছেন। তিনি বিএনপিকে কটাক্ষ করে কোনো বক্তব্য রাখেননি, কোনো রাজনৈতিক বক্তব্য দেননি।
তিনি বলেন, আমি নিজে বাহাদুর শাহ পার্কে যে বক্তব্য দিয়েছি তাতে বিএনপিকে আক্রমণ করে কোনো বক্তব্য রাখিনি। অথচ পহেলা বৈশাখের দিনেও বিএনপি নোংরা রাজনীতিতে মেতে উঠেছে। এটা অত্যন্ত দুঃখজনক। (বাসস)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..